ঢাকা ০৯:৪০ অপরাহ্ন, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪, ২৯ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ




বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা’র অনুমোদন পেল জনসনের তৈরি টিকা

কালের ধারা ২৪ ডেস্ক :
  • প্রকাশিত : ১০:৪৮:৫৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৩ মার্চ ২০২১ ৬০০ বার পঠিত
কালের ধারা ২৪, অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
বিজ্ঞাপন
print news

মার্কিন কোম্পানি জনসন অ্যান্ড জনসনের তৈরি করোনার টিকার জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।এই টিকার ১ ডোজই করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে কার্যকর বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।এই অনুমোদনের ফলে জনসনের টিকা নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোতে পৌঁছে যাবে ডব্লিউএইচওর ‘কোভ্যাক্স’ প্রকল্পের আওতায়।

বিজ্ঞাপন

১২ মার্চ (শুক্রবার) বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এ অনুমোদন দেয় বলে জানিয়েছেন মার্কিন গণমাধ্যম নিউইয়র্ক টাইমস।

কোম্পানীর দাবি, এক ডোজেই মারাত্মক করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধ সক্ষম এই টিকাটি ৩ মাস পর্যন্ত রেফ্রিজারেটরে সংরক্ষণ করা যায়।ফলে যেসব দেশ বা অঞ্চলে ফ্রিজার বা আল্ট্রা কোল্ড স্টোরেজ নেই সেসব এলাকায়ও এই ভ্যাকসিনটি সংরক্ষণ করা সম্ভব।

এরইমধ্যে এই টিকার ৫০ কোটি ডোজ চেয়েছে কোভ্যাক্স।তবে এই মুহূর্তে জনসনের উৎপাদনজনিত সমস্যা রয়েছে এবং ২০ কোটি ডোজ সরবরাহের জন্য যুক্তরাষ্ট্র সরকারের সঙ্গে চুক্তি রয়েছে।তবে আশা করা হচ্ছে, প্রতিদ্বন্দ্বী ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান মের্কের সঙ্গে চুক্তি করে উৎপাদনে গতি আনবে জনসন।

আরও পড়ুন: ভারতে ১৫ মার্চ থেকে সপ্তাহব্যাপী লকডাউন ঘোষণা

 




ফেসবুকে আমরা







x

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা’র অনুমোদন পেল জনসনের তৈরি টিকা

প্রকাশিত : ১০:৪৮:৫৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ১৩ মার্চ ২০২১
বিজ্ঞাপন
print news

মার্কিন কোম্পানি জনসন অ্যান্ড জনসনের তৈরি করোনার টিকার জরুরি ব্যবহারের অনুমোদন দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।এই টিকার ১ ডোজই করোনা ভাইরাসের বিরুদ্ধে কার্যকর বলে জানিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা।এই অনুমোদনের ফলে জনসনের টিকা নিম্ন ও মধ্যম আয়ের দেশগুলোতে পৌঁছে যাবে ডব্লিউএইচওর ‘কোভ্যাক্স’ প্রকল্পের আওতায়।

বিজ্ঞাপন

১২ মার্চ (শুক্রবার) বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা এ অনুমোদন দেয় বলে জানিয়েছেন মার্কিন গণমাধ্যম নিউইয়র্ক টাইমস।

কোম্পানীর দাবি, এক ডোজেই মারাত্মক করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধ সক্ষম এই টিকাটি ৩ মাস পর্যন্ত রেফ্রিজারেটরে সংরক্ষণ করা যায়।ফলে যেসব দেশ বা অঞ্চলে ফ্রিজার বা আল্ট্রা কোল্ড স্টোরেজ নেই সেসব এলাকায়ও এই ভ্যাকসিনটি সংরক্ষণ করা সম্ভব।

এরইমধ্যে এই টিকার ৫০ কোটি ডোজ চেয়েছে কোভ্যাক্স।তবে এই মুহূর্তে জনসনের উৎপাদনজনিত সমস্যা রয়েছে এবং ২০ কোটি ডোজ সরবরাহের জন্য যুক্তরাষ্ট্র সরকারের সঙ্গে চুক্তি রয়েছে।তবে আশা করা হচ্ছে, প্রতিদ্বন্দ্বী ওষুধ প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান মের্কের সঙ্গে চুক্তি করে উৎপাদনে গতি আনবে জনসন।

আরও পড়ুন: ভারতে ১৫ মার্চ থেকে সপ্তাহব্যাপী লকডাউন ঘোষণা