ঢাকা ০৩:০৯ পূর্বাহ্ন, শনিবার, ২০ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ




১ম অধিবেশন শেষে যা জানালেন ব্যারিস্টার সুমন

কালের ধারা ২৪ ডেস্ক :
  • প্রকাশিত : ০৯:৪৩:৩১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৪ ১২৫৪ বার পঠিত
কালের ধারা ২৪, অনলাইনের সর্বশেষ নিউজ পেতে অনুসরণ করুন গুগল নিউজ (Google News) ফিডটি
বিজ্ঞাপন
print news

১ম অধিবেশন শেষে যা জানালেন ব্যারিস্টার সুমন

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে হবিগঞ্জ-৪ আসন থেকে নির্বাচিত স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য (এমপি) সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন বলেছেন, তার সময় শুরু হয়ে গেছে। তিনি কাউন্ট করা শুরু করে দিয়েছেন। এই পাঁচ বছরেই সব কিছু করে দেখাবে তিনি।

বিজ্ঞাপন

ডেপুটি স্পিকার শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে বসে দ্বাদশ সংসদের প্রথম অধিবেশন। সংসদ অধিবেশন শেষে এসব কথা বলেন তিনি।

মানবতার ফেরিওয়ালা ব্যারিস্টার সুমন বলেন, আমি আমার পক্ষ থেকে আট লাখ মানুষের দায়িত্ব নেব, সারা বাংলা দেশে যেখানে দুর্নীতি হবে তার বিরূদ্ধে কথা বলব। ফুটবলটাকে আগের জায়গায় ফিরিয়ে নিতে যা করতে হবে করব। এজন্য এমপি হিসেবে কখনও হাফপ্যান্ট পরে নেমে যেতে হবে, আবার ময়লা পরিষ্কার করতেও নামতে হবে।

তিনি বলেন, আমি এমপি হিসেবে শপথ নেয়ার পর এক টাকাও আমার হাতে আসে নাই। কোনো বরাদ্দের চিঠিও পাইনি। এক হাজার কম্বল ছাড়া। এরপরও আমি ২৫ লাখ টাকার কাজ করাই ফেলছি। এই টাকাটা যে আমি দিয়েছি তা না। আমার কথা বিশ্বাস করে এখন সাধারণ মানুষই নেমে গেছে উন্নয়নের কাজে। আমি তাদের বলেছি আপনাদের ঋণ আমি যেকোনো মূল্যেই পরিশোধ করব। যদি সরকারিভাবে পরিশোধ করতে না পারি বাবার জমি বেচে হলেও তা দিয়ে দেব।

ব্যারিস্টার সুমন আরও বলেন, আমার সময় শুরু হয়ে গেছে, আমি কাউন্ট করা শুরু করেছি। আমরা এই পাঁচটা বছর ইবাদতের মতো করেই কাজ করতে চাই। কারণ বেশি সময় থাকলে ইবাদত দুর্বল হয়ে যায়। আমি এই পাঁচ বছরেই সব করে দেখাব।

এদিকে ডেপুটি স্পিকার শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে সংসদ শুরু হয়। পরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের স্পিকার হিসেবে শিরীন শারমিন চৌধুরীর নাম প্রস্তাব করেন। চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী প্রস্তাবকে সমর্থন দেন। পরে কণ্ঠভোটে সংসদে তা পাস হয়।

এরপরেই সংসদে বিরতি ঘোষণা করা হয়। বিরতির সময় রাষ্ট্রপতির কাছে স্পিকার হিসেবে শপথ নেন শিরীন শরামিন চৌধুরী। পরে ডেপুটি স্পিকার হিসেবে শামসুল হক টুকুকে নির্বাচন করেন সংসদ সদস্যরা।

এরপর নতুন এমপিদের উদ্দেশে প্রথমবারের মতো ভাষণ দেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন। বক্তব্যে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনের মাধ্যমে দেশের গণতান্ত্রিক শক্তি আরও সুদৃঢ় হয়েছে বলে জানান রাষ্ট্রপতি। পাশাপাশি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্পন্ন করায় নির্বাচন কমিশনসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান রাষ্ট্রপতি।

 




ফেসবুকে আমরা







x

১ম অধিবেশন শেষে যা জানালেন ব্যারিস্টার সুমন

প্রকাশিত : ০৯:৪৩:৩১ অপরাহ্ন, মঙ্গলবার, ৩০ জানুয়ারী ২০২৪
বিজ্ঞাপন
print news

১ম অধিবেশন শেষে যা জানালেন ব্যারিস্টার সুমন

দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে হবিগঞ্জ-৪ আসন থেকে নির্বাচিত স্বতন্ত্র সংসদ সদস্য (এমপি) সৈয়দ সায়েদুল হক সুমন বলেছেন, তার সময় শুরু হয়ে গেছে। তিনি কাউন্ট করা শুরু করে দিয়েছেন। এই পাঁচ বছরেই সব কিছু করে দেখাবে তিনি।

বিজ্ঞাপন

ডেপুটি স্পিকার শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে বসে দ্বাদশ সংসদের প্রথম অধিবেশন। সংসদ অধিবেশন শেষে এসব কথা বলেন তিনি।

মানবতার ফেরিওয়ালা ব্যারিস্টার সুমন বলেন, আমি আমার পক্ষ থেকে আট লাখ মানুষের দায়িত্ব নেব, সারা বাংলা দেশে যেখানে দুর্নীতি হবে তার বিরূদ্ধে কথা বলব। ফুটবলটাকে আগের জায়গায় ফিরিয়ে নিতে যা করতে হবে করব। এজন্য এমপি হিসেবে কখনও হাফপ্যান্ট পরে নেমে যেতে হবে, আবার ময়লা পরিষ্কার করতেও নামতে হবে।

তিনি বলেন, আমি এমপি হিসেবে শপথ নেয়ার পর এক টাকাও আমার হাতে আসে নাই। কোনো বরাদ্দের চিঠিও পাইনি। এক হাজার কম্বল ছাড়া। এরপরও আমি ২৫ লাখ টাকার কাজ করাই ফেলছি। এই টাকাটা যে আমি দিয়েছি তা না। আমার কথা বিশ্বাস করে এখন সাধারণ মানুষই নেমে গেছে উন্নয়নের কাজে। আমি তাদের বলেছি আপনাদের ঋণ আমি যেকোনো মূল্যেই পরিশোধ করব। যদি সরকারিভাবে পরিশোধ করতে না পারি বাবার জমি বেচে হলেও তা দিয়ে দেব।

ব্যারিস্টার সুমন আরও বলেন, আমার সময় শুরু হয়ে গেছে, আমি কাউন্ট করা শুরু করেছি। আমরা এই পাঁচটা বছর ইবাদতের মতো করেই কাজ করতে চাই। কারণ বেশি সময় থাকলে ইবাদত দুর্বল হয়ে যায়। আমি এই পাঁচ বছরেই সব করে দেখাব।

এদিকে ডেপুটি স্পিকার শামসুল হক টুকুর সভাপতিত্বে মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) বিকেলে সংসদ শুরু হয়। পরে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের স্পিকার হিসেবে শিরীন শারমিন চৌধুরীর নাম প্রস্তাব করেন। চিফ হুইপ নূর-ই-আলম চৌধুরী প্রস্তাবকে সমর্থন দেন। পরে কণ্ঠভোটে সংসদে তা পাস হয়।

এরপরেই সংসদে বিরতি ঘোষণা করা হয়। বিরতির সময় রাষ্ট্রপতির কাছে স্পিকার হিসেবে শপথ নেন শিরীন শরামিন চৌধুরী। পরে ডেপুটি স্পিকার হিসেবে শামসুল হক টুকুকে নির্বাচন করেন সংসদ সদস্যরা।

এরপর নতুন এমপিদের উদ্দেশে প্রথমবারের মতো ভাষণ দেন রাষ্ট্রপতি মো. সাহাবুদ্দিন। বক্তব্যে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচনের মাধ্যমে দেশের গণতান্ত্রিক শক্তি আরও সুদৃঢ় হয়েছে বলে জানান রাষ্ট্রপতি। পাশাপাশি অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্পন্ন করায় নির্বাচন কমিশনসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান রাষ্ট্রপতি।